ইতিহাসের সবচেয়ে বড় মাদকের চালান ধরলো সৌদি

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ সেপ্টেম্বর ১, ২০২২ | ৫:০৯
ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ সেপ্টেম্বর ১, ২০২২ | ৫:০৯
Link Copied!
ইতিহাসের সবচেয়ে বড় মাদকের চালান ধরলো সৌদি

ইতিহাসের সবচেয়ে বড় মাদকের একটি চালান ধরেছে সৌদি আরব। ৩১ আগস্ট দেশটির নিরাপত্তা বাহিনী প্রায় চার কোটি ৭০ লাখ অ্যাম্ফিটামিন ট্যাবলেট জব্দ করে। দেশটির মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের জানিয়েছে, এটি একক অভিযানে ধরা পড়া দেশটির ইতিহাসে সবচেয়ে বড় মাদকের চালান। 

 

বিজ্ঞাপন

বিবিসির খবরে বলা হয়, আটার বস্তার মধ্যে এই চালান পাচার করা হচ্ছিলো। দেশটির মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের মুখপাত্র মেজর মোহাম্মদ আল-নুজাইদি বলেন, এই চালানটি সৌদি আরবের রিয়াদ শুষ্ক বন্দরে পৌঁছনোর পর গুদামে স্থানান্তরিত করা হয়েছিল। এসময় নিরাপত্তা বাহিনী গুদামটিতে অভিযান চালিয়ে আটজন সৌদি নাগরিক, ছয়জন সিরিয়ার নাগরিক এবং দুই পাকিস্তানিকে আটক করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে।

 

বিজ্ঞাপন

সৌদি কর্তৃপক্ষ দেশটিতে মাদকপাচারের বিরুদ্ধে তাদের পদক্ষেপ বাড়িয়েছে। ক্যাপ্টাগন এবং অ্যাম্ফিটামিন ট্যাবলেটের বেশ কয়েকটি চালান নিয়মিতভাবে জব্দ করা হয়েছে। জানা গেছে সেগুলোর উৎস প্রধানত সিরিয়া এবং লেবানন। মাদক চোরাচালান বন্ধে দেশটি ২০২১ সালে লেবাননের ফল এবং সবজি আমদানি নিষিদ্ধ করে।

ইতিপূর্বে ডালিমের ভেতর ঠাসা ক্যাপ্টাগনের ৫০ লাখ ট্যাবলেট জব্দ করার পর এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। ক্যাপ্টাগন, অ্যাম্ফিটামিন ট্যাবলেট উপসাগরীয় ধনী যুবকদের মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় ড্রাগগুলির মধ্যে একটি। জাতিসংঘের মাদক ও অপরাধ বিভাগের তথ্যমতে, ২০১৫ থেকে ২০১৯ সালের মধ্যে মধ্যপ্রাচ্যে যত ক্যাপটাগন পিল উদ্ধার হয়েছে তার অর্ধেকেরও বেশি হয়েছে সৌদি আরব থেকে। সিরিয়ার সংকট শুরু হলে মধ্যপ্রাচ্যে ক্যাপটাগন খুব জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। মূলত বিভিন্ন পক্ষে যুদ্ধরত সৈন্যরাই এই পিল গ্রহণ করতে শুরু করেন, যেন দীর্ঘ সময় ধরে যুদ্ধ করা যায়।

আরো পড়ুন:

ওমানে মহামারির মতো ছড়িয়ে পড়ছে বিবাহবিচ্ছেদ

‘প্রবাসীদের রেমিট্যান্স-যোদ্ধা বলে লাভ নেই’

ডিজিটাল হুন্ডির ফাঁদে আটকে যাচ্ছে রেমিট্যান্স

 

ক্যাপটাগনের মতো ভয়ঙ্কর মাদক উদ্ধারের ঘটনা সৌদি আরবে এখন একটি নিয়মিত ঘটনা। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এসব পিল আকারে অনেক ছোট এবং তৈরি করাও সহজ। সৌদি আরবে এই পিলের বিপুল চাহিদা থাকায় সিরিয়া ও লেবাননে এগুলো তৈরি করা হচ্ছে। ফরেন পলিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মাদক পাচারকারীদের কাছে সৌদি আরব এখন অনেক বড় একটি বাজার।

বর্তমানে দেশটি মধ্যপ্রাচ্যের মধ্যে মাদকের রাজধানী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছে। আরবের সবচেয়ে ধনী এই রাষ্ট্রটিতে ক্যাপটাগন পিল এখন এক নতুন উন্মাদনা। মন ফুরফুরে করার জন্য মাদকসেবীরা এটি গ্রহণ করেন। মূলত এটি আমাদের দেশের বহুল পরিচিত ইয়াবারই আরেকটি রূপ। এই পিল গ্রহণ করলে সহজে ঘুম আসে না এবং মানুষের মাঝে উন্মাদনারও সৃষ্টি করে। সবশেষে এটি স্বাস্থ্যেরও বড় ক্ষতি করে।

 

আরো দেখুন:

শীর্ষ সংবাদ:
বিপুল উৎসাহ-উদ্দীপনায় জাতীয় দিবস উদযাপন করলো সৌদি আরব ঢাকায় আমিরাতের নতুন রাষ্ট্রদূত আব্দুল্লাহ আলহামুদি শিশু পর্নোগ্রাফির অভিযোগে বাংলাদেশি গ্রেফতার অবশেষে ফাঁস হলো মেসির বার্সা ছাড়ার রহস্য বিশ্বকাপে টিকিটের সাথে ‘হায়া কার্ড’ বাধ্যতামূলক করলো কাতার ওমানে চুরির অভিযোগে চার প্রবাসী গ্রেফতার সিরিয়া উপকূলে নৌকাডুবিতে নিহত ৭১ অভিবাসী মধ্যপ্রাচ্যের বাজারে সাড়া ব্যাপক ফেলছে বাংলাদেশি মাছ কুয়েতে প্রবাসীদের জন্য দুঃসংবাদ দুবাইতে মেশিনের সুইচ চাপলেই বিনামূল্যে মিলছে রুটি কোরআন প্রতিযোগিতায় ১১১ দেশের মধ্যে তৃতীয় বাংলাদেশের তাকরীম প্রবাসীদের পাসপোর্ট প্রাপ্তি সহজীকরণের দাবি জামালপুরে এক মেয়ে বিয়ে করলো আরেক মেয়েকে সিআইডি অভিযানের পর রেমিট্যান্সের প্রবাহ বৃদ্ধি পেয়েছে বিমানবন্দর থেকে সাফ জয়ী নারীদের লাগেজ ভেঙে আড়াই লাখ টাকা চুরি রহস্যময় গ্রাম, মানুষকে উধাও করে দেয় নিমিষেই নতুন রোগ, বিমানবন্দর থেকে ফেরত যাচ্ছেন অনেক প্রবাসী ওমানে গাড়ী বীমার খরচ বাড়লো ১৫ শতাংশ হানিমুনে গিয়ে প্রবাসী স্বামীকে পিটিয়ে প্রেমিকের সাথে পালালো স্ত্রী ইউরোপে মানবপাচার চক্রের মূলহোতাসহ ৩ জনকে গ্রেপ্তার