প্রবাসী বাবাকে বাঁচাতে ৭ বছরের মেয়ের আকুতি

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ সেপ্টেম্বর ১১, ২০২২ | ২:১৮
ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ সেপ্টেম্বর ১১, ২০২২ | ২:১৮
Link Copied!
প্রবাসী বাবাকে বাঁচাতে ৭ বছরের মেয়ের আকুতি

প্রবাসে সবাই যখন যার যার কর্মে ব্যস্ত সময় পার করছে, মাহবুব আলম তখন মালয়েশিয়ার শাহ আলম হাসপাতালে বাঁচা-মরার সন্ধিক্ষণে। বাংলাদেশি প্রবাসী মাহবুব ২২ জুন দুর্ঘটনার শিকার হন। চিকিৎসকরা বলছেন, প্রচণ্ড আঘাতে তার মুখের হাড় ভেঙে গেছে, ডান চোখ নষ্ট হয়ে গেছে, শিরা ছিড়ে মাথার ব্রেইন মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তবে উন্নত চিকিৎসা পেলে এ রেমিট্যান্স যোদ্ধার সুস্থ হয়ে ওঠার সম্ভাবনা আছে বলেও জানিয়েছেন কর্তব্যরত চিকিৎসকরা।

নদী ভাঙনে সহায়-সম্বল হারানো মাহবুবের ৩ মেয়ে ও স্ত্রী থাকেন গাজীপুরের বোর্ডবাজারে একটি ভাড়া বাসায়। পুরো সংসার নির্ভরশীল মাহবুবের ওপর, যে নিজেই এখন মৃত্যুশয্যায়। আর তাই বাবাকে বাঁচাতে ৭ বছরের মেয়ে মাহিমা আক্তার অধরা হাত পেতেছেন বিত্তবানদের কাছে। চিকিৎসকরা বলছেন, মাহবুবের উন্নত চিকিৎসা চালিয়ে যাওয়া অনেক ব্যয়বহুল।

এখন পর্যন্ত হাসপাতালে মাহবুবের বিল হয়েছে ৪৮ হাজার রিঙ্গিত, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ১২ লাখ টাকা। হাসপাতালের বিলের অংক আরোও বাড়বে। তবে এ টাকা পরিশোধ না করলে তার চিকিৎসা চালিয়ে যাওয়া মুশকিল। শুরুতেই আইসিইউতে রাখা হলেও অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে এইচডিডব্লিউতে রাখা হয়। চিকিৎসা অব্যাহত না রাখলে তাকে বাঁচানো সম্ভব নাও হতে পারে বলে চিকিৎসকরা ইতোমধ্যে জানিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

আরো পড়ুন: প্রবাসী মাহবুবকে বাঁচানোর আকুতি পরিবারের

হাঁসপাতালে যেয়ে দেখা গেছে গত দুই দিন ধরে মাহবুবের শারিরিক অবস্থা খারাপের দিকে। কথা বলতে পারেননা। ফেল ফেল করে থাকিয়ে থাকেন। বিদেশে ব্যয়বহুল চিকিৎসা এগিয়ে নেওয়া তার পরিবারের সাধ্যের বাইরে। সব মিলিয়ে তাকে দেশে ফিরিয়ে এনে চিকিৎসার ব্যবস্থা করাই এখন বেশি প্রয়োজন। কিন্তু, মালয়েশিয়ার হাসপাতালের বিল পরিশোধ করে তাকে দেশে ফিরিয়ে আনার সামর্থ্য তার পরিবারের নেই। তাই একমাত্র উপার্জনক্ষম মানুষটিকে বাঁচাতে, দেশে ফিরিয়ে আনতে সরকার-বিত্তবানদের কাছে আকুতি জানিয়েছে মাহবুবের এই ছোট্ট শিশুটি।

মাহবুবের স্ত্রী সিমা আক্তারের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের ওয়েজ আর্নার্স কল্যাণ বোর্ড ৮ হাজার রিঙ্গিত (বাংলাদেশি ২ লাখ টাকা) সহায়তা করেন, যা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই অপ্রতুল। অন্যদিকে মালয়েশিয়ার বাংলাদেশ হাইকমিশন থেকে প্রয়োজনীয় সব ধরনের সহায়তা দিলেও হাসপাতালের বিপুল পরিমাণ বিল মেটানো সম্ভব হচ্ছে না। হাসপাতালের বিল পরিশোধ ও মাহবুবকে দেশে ফিরিয়ে আনতে হলে উড়োজাহাজ ভাড়া ও আনুষঙ্গিক খরচ বাবত প্রায় ৭৫ হাজার রিঙ্গিত (বাংলাদেশি ১৮ লাখ ৩০ হাজার টাকা) প্রয়োজন।

এ অবস্থায় সরকারের বিশেষ উদ্যোগ আর বরাদ্দের আশায় আছেন মাহবুবের পরিবার। পাশাপাশি দেশ ও প্রবাসে থাকা বিত্তবানদের কাছেও সহায়তার আহ্বান জানিয়েছেন তারা। মাহবুব আলম সম্পর্কে খোঁজখবর নিতে স্ক্রিনে দেওয়া নাম্বারে যোগাযোগ করতে অনুরোধ জানিয়েছে তার পরিবার। +৬০১৬২৬৬২১৬২, +৬০১৪২৬৬০০৩৯

বিজ্ঞাপন

আরো পড়ুন:

যেভাবে ধনী হয়েছে কাতার!

ছুটিতে দেশে এসে সৌদি প্রবাসীর মৃত্যু

বেড়েছে প্রবাসী আয়, রিজার্ভ ৩৭ বিলিয়ন ডলার

হুন্ডিতে টাকা নিলে বিপদে পড়বেন প্রবাসীর স্বজন

মৃত্যুকূপ পাড়ি দিয়ে ইতালিতে পৌঁছেছে ৩৮ বাংলাদেশি

আরো দেখুনঃ

শীর্ষ সংবাদ:
বিপুল উৎসাহ-উদ্দীপনায় জাতীয় দিবস উদযাপন করলো সৌদি আরব ঢাকায় আমিরাতের নতুন রাষ্ট্রদূত আব্দুল্লাহ আলহামুদি শিশু পর্নোগ্রাফির অভিযোগে বাংলাদেশি গ্রেফতার অবশেষে ফাঁস হলো মেসির বার্সা ছাড়ার রহস্য বিশ্বকাপে টিকিটের সাথে ‘হায়া কার্ড’ বাধ্যতামূলক করলো কাতার ওমানে চুরির অভিযোগে চার প্রবাসী গ্রেফতার সিরিয়া উপকূলে নৌকাডুবিতে নিহত ৭১ অভিবাসী মধ্যপ্রাচ্যের বাজারে সাড়া ব্যাপক ফেলছে বাংলাদেশি মাছ কুয়েতে প্রবাসীদের জন্য দুঃসংবাদ দুবাইতে মেশিনের সুইচ চাপলেই বিনামূল্যে মিলছে রুটি কোরআন প্রতিযোগিতায় ১১১ দেশের মধ্যে তৃতীয় বাংলাদেশের তাকরীম প্রবাসীদের পাসপোর্ট প্রাপ্তি সহজীকরণের দাবি জামালপুরে এক মেয়ে বিয়ে করলো আরেক মেয়েকে সিআইডি অভিযানের পর রেমিট্যান্সের প্রবাহ বৃদ্ধি পেয়েছে বিমানবন্দর থেকে সাফ জয়ী নারীদের লাগেজ ভেঙে আড়াই লাখ টাকা চুরি রহস্যময় গ্রাম, মানুষকে উধাও করে দেয় নিমিষেই নতুন রোগ, বিমানবন্দর থেকে ফেরত যাচ্ছেন অনেক প্রবাসী ওমানে গাড়ী বীমার খরচ বাড়লো ১৫ শতাংশ হানিমুনে গিয়ে প্রবাসী স্বামীকে পিটিয়ে প্রেমিকের সাথে পালালো স্ত্রী ইউরোপে মানবপাচার চক্রের মূলহোতাসহ ৩ জনকে গ্রেপ্তার